মশা ঠেকাতে পুরসভার বিরুদ্ধে ব্যর্থতার অভিযোগ, মশারি টাঙিয়ে শহরে অভিনব প্রতিবাদ যুব মোর্চার

0
320
পত্রিকা প্রতিনিধিঃ মশার উপদ্রব ঠেকাতে সম্পুর্ণ ব্যর্থ মেদিনীপুর পুরসভা। গোটা রাজ্যের মতো শহরেও ডেঙ্গু দেখা দিচ্ছে তাই উদাসীন পুরসভার সামনে মশারি টাঙিয়ে অভিনব বিক্ষোভ দেখালো বিজেপির যুব মোর্চা। বুধবার দুপুরে শহরে বিক্ষোভ মিছিল দিয়ে কর্মসূচি শুরু করে বিজেপির যুব মোর্চা। বিক্ষোভ মিছিলটি শহর পরিক্রমা করে মেদিনীপুর পুরসভার সামনে আসে। সেখানে মশারি টাঙিয়ে মশারির ভেতরে বেশ কয়েকজন ঢুকে বিক্ষোভ দেখান। সংগঠনের বক্তব্য শহরের নিকাশি নালা, ভ্যাট নিয়মিত পরিষ্কার না হওয়ায় সেগুলি মশার আঁতুড়ঘরে পরিনত হয়েছে। সময়মতো ব্লিচিং ও মশার তেল দেওয়া হয় না। শুধু ডেঙ্গু নিয়ে পুরসভার উদাসীনতাই নয়, পুরসভার একধিক সমস্যা নিয়েও সরব হয় যুব মোর্চা। সংগঠনের অভিযোগ সম্পূর্ণ পরিকল্পনাহীন ভাবে শহরে ফুটপাত তৈরি হয়েছে, যার ফলে মূল রাস্তা সরু ও ছোট হয়ে গেছে। বিভিন্ন জায়গায় এত যান চলাচল ও সাধারন মানুষের সমস্যা যেমন বৃদ্ধি পেয়েছে তেমন ফুটপাত তৈরি হওয়ার পরই সেই ফুটপাত চলে গিয়েছে গ্যারেজ মালিক বা ছোট বড় ব্যবসায়ীদের দখলে। কেরানিতলা থেকে জজকোর্ট যাওয়ার রাস্তা ও কেরানিতলা থেকে হাসপাতাল যাওয়ার রাস্তার চিত্র এমনই। এর ফলে সাধারন মানুষ ফুটপাত ব্যবহার করতে পারছেন না। সংগঠনের অভিযোগ, শহরের বেশ কয়েকটি প্রধান রাস্তা সহ ওয়ার্ডের রাস্তাগুলি ভেঙে গিয়েছে, সারাই করার কোনও উদ্যোগই নেই। পুর পরিষেবা প্রদানের ক্ষেত্রে কাউন্সিলররা বেশিরভাগ সময়ই চুড়ান্ত দলবাজি ও দুর্নীতি করছেন। নিজেদের পছন্দমতো লোকেদের দেওয়া হচ্ছে। বিশেষ করে বিরোধী দলের কর্মী সমর্থক যাঁরা পাওয়ার যোগ্য তাঁদেরকে বঞ্চিত করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী আবাস যোগজনার প্রকল্পটিতে পছন্দসই বা কাছে লোকেদেরই পাইয়ে দিচ্ছে কাউন্সিলররা। যুব মোর্চার আরও অভিযোগ, পুরসভার বিভিন্ন জিনিস কেনা হচ্ছে টেন্ডার ছাড়াই এমনকি বোর্ড মিটিং-এও এসব নিয়ে আলোচনা হচ্ছে না। 
   সর্বপরি, যুব মোর্চা দাবি করেছে সম্প্রতি শহরের ৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলরের দুর্নীতি নিয়ে যুব তৃণমূলেরই এক কর্মী ফেসবুকে পোষ্ট করেছেন। দুপক্ষই আদালতে যাওয়ায় হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। সংগঠনের বক্তব্য যে কাউন্সিলরের নামে দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে তার তদন্ত হোক । পুরসভার সামনে বিক্ষোভের পর পুরপ্রধানকে তারা একটি ডেপুটেশন দেয়। কর্মসূচিতে ছিলেন তুষার মুখার্জী, অরূপ দাস, আশীর্বাদ ভৌমিক, অরুণাভ ঘোষ, অভিজিৎ দে, সোমনাথ সিনহা, সৌমেন তিওয়ারি প্রমুখ।