মেদিনীপুর ফুড অ্যান্ড আর্ট ফেস্টিভ্যাল শুরু হ’ল

0
1537

পত্রিকা প্রতিনিধিঃ অপরকে খাইয়ে তৃপ্ত করা নয়, অপরকে খাইয়ে নিজেও তৃপ্ত হওয়া যায় । আপনারা ভালো ভালো পদ রান্না করে প্রিয়জনদের খাইয়ে তৃপ্ত হোন, খাইয়েও মানুষের মন জয় করা হয়। শহরের মেদিনীপুর কুক ফেস্টিভ্যালে এসে দর্শকদের মাতিয়ে একথাই বললেন বিশিষ্ট রন্ধন শিল্পী সুদীপা চ্যাটার্জী । মেদিনীপুর আর্ট অ্যাকাডেমির উদ্যোগে বিদ্যাসাগর হলে তিনদিন ব্যাপী ফুড অ্যান্ড আর্ট ফেস্টিভ্যাল শুক্রবার থেকে শুরু হ’ল । অনুষ্ঠানের সুচনা করেন সুদীপা দেবী । বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে রন্ধন শিল্পী হিসেবে বহু শো করেন তিনি। প্রথম দিন রান্না করার প্রতিযোগিতা । তাতে ২০ জন মহিলা প্রতিযোগী অংশ নেন । সুদীপার উপস্থিতিতে অনুষ্ঠানটি বর্ণময় হয়ে ওঠে । সুদীপাকে বলতে শোনা যায় মেদিনীপুরের মানুষ এত খাদ্যরসিক, খাবার নিয়ে এত উতসাহ উদ্দীপনা রয়েছে এখানে না হলে বোঝাই যেত না । খাদ্য নিয়ে এমন উৎসাহ অনেক শহরেই নেই । মেলা প্রাঙ্গনে বিভিন্ন খাবারের স্টল ছিল । ভিড় জমান খাদ্যরসিকরা । ২০ জানুয়ারি হবে রাজ্যব্যাপী বসে আকো প্রতিযোগিতা । ২১ জানুয়ারি হবে আবৃতি শিল্পী ব্রততী বন্দ্যোপাধ্যায়ের আবৃতির অনুষ্ঠান । শহরের বাইরে এমনকি অন্য জেলা থেকেও খাবারের স্টল নিয়ে এসেছেন বিক্রেতারা । এছাড়াও গৃহস্থলি, ঘর সাজানোর জিনিস, মেয়েদের প্রসাধনী দ্রব্যের স্টল রয়েছে । উপস্থিত ছিলেন আর্ট অ্যাকাডেমির অধ্যক্ষ রাজীব দাস, সম্পাদক সঞ্জিত মাল, সভাপতি তুলসী প্রসাদ দাস, ফেস্টিভ্যালের সভাপতি মদন মোহন মাইতি, সহ সভাপতি প্রসেঞ্জিৎ সাহা, তীর্থঙ্কর ভকত, আলোক দাস, সম্পাদক অনয় মাইতি ও শান্তনু চক্রবর্তী, সহ সম্পাদক অভিজিৎ চ্যাটার্জী ও রণদীপ পড়্যা, প্রধান পৃষ্ঠপোষক সুকুমার পড়্যা, সমাজসেবী উদয়রঞ্জন পাল, সুতনু চক্রবর্তী সহ আরও অনেকেই ।