সন্ধ্যার পর পথ আটকে টাঙি লাঠির আঘাত, জখম ৭

0
1077

পত্রিকা প্রতিনিধিঃ হঠাতই পথ আটকে মারধর এবং টাঙি ও লাঠির আঘাতে ৭ জনের জখম হওয়ার ঘটনা ঘটল কেশিয়াড়িতে। তাদের উদ্ধার করে কেশিয়াড়ি ও মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। একজনকে কলকাতায় স্থানান্তরিত করতে হইয় বলে জানা গিয়েছে। তবে মারধরের কারণ নিয়ে তৈরি হয়েছে ধোঁয়াশা।

রবিবার রাতে নারায়ণগড় ব্লক ও কেশিয়াড়ি ব্লকের সীমানা এলাকা নেগুসবনি জঙ্গলের কাছে পারিজাতপুরে এই ঘটনা ঘটে। জানা গিয়েছে সন্ধ্যার  পর মেট্যালের রাংটিয়া এলাকার বেশ কয়েকজন কেশিয়াড়ির দিকে যাচ্ছিলেন। অন্যদিকে কয়েকজন কেশিয়াড়ির সাঁতরাপুর থেকে ফিরছিলেন। নারায়নগড়ের মেট্যাল যমুনাতে। সন্ধ্যে ৭টা নাগাদ সেই সময় পথে কাঁটা ফেলে বাইক আতকে অতর্কিতে তাদের মারধর করা হয়। সবার মুখ কালো কাপড়ে বাঁধা ছিল বলে আহতদের বক্তব্য। খবর পেয়ে নারায়ণগড় থানা ও কেশিয়াড়ি থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। কেশিয়াড়ি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন যুগল নায়েক, শিবু নায়েক, কচন নায়েক। তাঁদের বক্তব্য, “সবার মুখে কালো কাপড় বাঁধা ছিল। কেন মারধর করা হল বুঝতে পারছি না। ” আহতদের পক্ষ থেকে কেশিয়াড়ি থানায় অভিযোগ জানানো হয়েছে। মারধরের কারণ জানতে ঘটনার তদন্তে নেমেছে পুলিশ।