ডি এস ও-র বিশ্ববিদ্যালয় ও ডি আই দফতর অভিযান

0
264

পত্রিকা প্রতিনিধিঃ শিক্ষার নানান দাবী নিয়ে বৃহস্পতিবার বিদ্যাসাগর বিশ্ববিদ্যালয় ও জেলা শিক্ষা পরিদর্শকের দপ্তর অভিযান করল ছাত্র সংগঠন ডিএসও। এদিন একটি সুসজ্জিত মিছিল মেদিনীপুর স্টেশন থেকে শুরু হয়ে জেলাশাসকের দপ্তরের সামনে দিয়ে এলআইসি চকে পৌঁছে দুটি ভাগে ভাগ হয়ে যায়। স্কুল স্তরের নানান সমস্যা নিয়ে একটি মিছিল জেলা শিক্ষা পরিদর্শকের দপ্তর অভিমুখে যায়, কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের সমস্যা নিয়ে অন্য মিছিলটি যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের দিকে। নেতৃত্ব দেন রাজ্য নেতৃত্ব ও জেলা সম্পাদক মনিশংকর পট্টনায়ক, প্রদীপ ওঝা, সুরজিত সামান্ত, বিশ্বরঞ্জন গিরি, সিদ্ধার্থশংকর ঘাঁটা প্রমুখ। মিছিল বিশ্ববিদ্যালয়ের গেটে পৌঁছালে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে ছাত্রছাত্রীরা। অবিলম্বে অবৈজ্ঞানিক সিবিসিএস-সেমিস্টার বাতিল, ছাত্র সংসদ নির্বাচন ঘোষণা, অত্যধিক ফি আদায় বন্ধ, ছাত্রছাত্রীদের একতৃতীয়াংশ বাস ভাড়ায় যাতায়াতে বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বদর্থক ভূমিকার দাবীর ওঠে বিক্ষোভ মিছিল থেকে। চার সদস্যের এক প্রতিনিধি দল পরীক্ষা নিয়ামক, অ্যাসিসটেন্ট রেজিস্ট্রার ও কলা বিভাগের ডিন এর সাথে সাক্ষাত করেন। প্রতিনিধিদের দাবির যৌক্তিকতা মেনে নিয়ে পরীক্ষা নিয়ামক সুব্রত কুমার দে বলেন– “আমরা আপনাদের দাবী সরকার ও ইউজিসিকে জানাবো। তবে ছাত্রছাত্রীদের আরো সক্রিয় হয়ে লড়তে হবে।”
এদিন প্রথম শ্রেণী থেকেই পাশফেল চালু, সরকার নির্ধারিত ফি তেই সমস্ত স্কুলে ভর্তির দাবিতে জেলা শিক্ষা পরিদর্শকের দপ্তরও বিক্ষোভ ডেপুটেশন হয়। জেলা সম্পাদক মণিশংকর পট্টনায়ক বলেন-” শিক্ষা স্বার্থে আমরা সুনির্দিষ্ট কিছু দাবী রেখেছি। এই দাবীর স্বপক্ষে গোটা দেশ জুড়েই আন্দোলন চলছে। দাবী পূরণ না হলে সংগঠনের পক্ষ থেকে আরো বৃহত্তর আন্দোলন সংগঠিত হবে।”
এদিন উভয় জায়গায়ই অসংখ্য পুলিশ মোতায়েন করা হয়।