মোদীর সভাস্থলে দুর্ঘটনায় আহত বিজেপি কর্মীদের দেখতে মেডিক্যাল হাসপাতালে মুখ্যমন্ত্রী

0
913

পত্রিকা প্রতিনিধিঃ রাজনৈতিক সৌজন্যের আবারও এক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সভাস্থলে শামিয়ানা ভেঙে যেসব বিজেপি কর্মী আহত হন তাঁদের সঙ্গে দেখা করে তা৬দের পাশে থাকার বার্তা দিলেন তিনি। মেদিনীপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপ্তালে দু’জন বিজেপি কর্মী সুমিত্রা মাহাত এবং কৌশিক মাহাতর সঙ্গে দেখা করেন। শহরের এক বেসরকারি নার্সিংহোমে চিকিৎসাধীন আরও এক বিজেপি কর্মীর সঙ্গেও দেখা করেন মুখ্যমন্ত্রী। সাংবাদিকদের সঙ্গে দেখা করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর সভায় শামিয়ানা ভেঙে যাঁরা আহত হয়েছেন তাঁদের সঙ্গে দেখা করে গেলাম, এরা প্রত্যেকেই নিম্ন মধ্যবিত্ত বলে মন হল, মুখ্যমন্ত্রীর ত্রান তহবিল থেকে তাঁদের একলক্ষ টাকা করে দেওয়া হবে।’ আজ শুক্রবার সেই টাকার চেক তাঁদের হাতে তুলে দেওয়া হবে। 

আজ শুক্রবার খড়গপুর আই আই টি-র সমাবর্তণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তার আগে বৃহস্পতিবার বিকেলে মেদিনীপুরে মেডিক্যাল হাসপ্তালে আসেন। মুখ্যমন্ত্রী তাঁদের দেখতে এসেছেন এটা ভেবেই আপ্লুত সুমিত্রা মাহাত এবং কৌশিক মাহাত। সুমিত্রা বাড়ি গোয়ালতোড়ের সেকাশোলে। তাঁরা জানালেন মুখ্যমন্ত্রী আমাকে দেখতে এসেছেন তা কল্পনাও করতে পারছি না, সত্যি মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সরাসরি কথা বলে ভালো লাগছে। কোউশিকের বাড়ি বেলাটিকরির কুরকুটশোলে। বছর কুড়ির কলেজ পড়ূয়া কৌশিক জানালেন, মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলে ভালো লাগলো, উনি সবকিছুই খোঁজ নিলেন। মুখ্যমন্ত্রী আহত বিজেপি কর্মীদের সঙ্গে দেখা করতে যাওয়ায় কটাক্ষ করেছেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এক প্রশ্নের উত্তরে দিলীপ বাবু বলেন, আহত বিজেপি করমীদের সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী দেখা করেছেন তাঁদের আর্থিক সাহায্যের কথা বলেছেন খুব ভালো, কিন্তু সেদিন ৯৩ জন বিজেপি কর্মী আহত হলেন, কয়েকজন কলকাতায় হাসপ্তালে ভর্তি, তাঁদেরকেও যেন আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়।